বিকাশ

আপনার বিকাশ একাউন্ট থেকে যা করবেন না

বিকাশ বাংলাদেশের শীর্ষস্থানীয় ফোনভিত্তিক আর্থিক লেনদেন (এমএফএস) সেবাদানকারী প্রতিষ্ঠান। বিকাশ অ্যাকাউন্ট ব্যবহারে আপনার বিকাশ একাউন্ট থেকে যা করবেন না, তথ্যগুলো জানা এবং মানা একান্ত জরুরি। এতে করে বিকাশ একাউন্টের নিরাপত্তা নিশ্চিত হবে এবং আপনি অনাকাঙ্ক্ষিত কোন ঝামেলায়ও পরবেন না। আবার বিকাশ একাউন্ট ব্যবহারের সময় নিরাপত্তা নিশ্চিতে কিছু বিষয় মোটেই করা উচিত নয়।

বিকাশ একাউন্টের নিরাপত্তা রক্ষায় কী কী করা উচিত নয়? চলুন জেনে নেয়া যাক।

আপনি চিনেন না বা বিশ্বাস করেন না, এমন মানুষকে আপনার বিকাশ একাউন্ট যুক্ত ফোন দেওয়া থেকে বিরত থাকুন। মনে রাখবেন, যেকেউ আপনার ফোন হাতে পেলে আপনার বিকাশ একাউন্ট অ্যাকসেস করতে পারেবে। তাই ভুলেও কারো হাতে নিজের ফোন দিবেন না।

কোড শেয়ার করা

বিকাশ একাউন্টের মূল নিরাপত্তা নিশ্চিত করে এর পিন কোড। তাই কখনো বিকাশ পিন, সিক্রেট কোড, সিকিউরিটি কোড, ইত্যাদি কারো সাথে শেয়ার করবেন না। মনে রাখবেন, বিকাশ কখনো আপনার পিন, সিক্রেট কোড, সিকিউরিটি কোড, ইত্যাদি জান

অন্যের একাউন্ট ব্যবহার করে লেনদেন

আপনার নিজের বিকাশ একাউন্ট ব্যবহার করে সবসময় লেনদেন করুন। অন্যের একাউন্ট ব্যবহার করে অর্থ লেনদেন থেকে বিরত থাকুন। যেকেউ তার এনআইডি ও মোবাইল নাম্বার ব্যবহার করে বিনামূল্যে বিকাশ একাউন্ট খুলতে পারে। তাই সবসময় লেনদেনের ক্ষেত্রে নিজের বিকাশ একাউন্ট ব্যবহার করুন।

লোভে পড়া
বিকাশে লটারি, পুরস্কার বা প্রতিযোগিতার নাম করে কেউ যোগাযোগ করলে ধরে নিবেন এটি প্রতারণা। কেউ যদি আপনাকে ফোন করে জানায় যে আপনি বিকাশ একাউন্টে লটারি বা কোনো পুরস্কার জিতেছেন, তখনই বিকাশ হেল্পলাইন নাম্বারে যোগাযোগ করে উক্ত তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করুন।

সেন্ড মানির মাধ্যমে ক্যাশ আউট
কখনো সেন্ড মানি ফিচার ব্যবহার করে বিকাশ এজেন্ট থেকে ক্যাশ আউট আউট করবেন না। এজেন্টের কাছ থেকে ক্যাশ আউটের ক্ষেত্রে সবসময় ক্যাশ আউট অপশন ব্যবহার করে টাকা তুলুন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.