স্বাস্থ্য

ডায়াবেটিস রোগীর খাদ্য তালিকা – razuaman.com স্বাস্থ্য

ডায়াবেটিস রোগীর খাদ্য তালিকা razuaman.com
স্বাস্থ্য

ডায়াবেটিস রোগীদের তালিকা: চিকিৎসা খাদ্য বিজ্ঞানের অগ্রগতির সাথে আজ বিশ্বে ডায়াবেটিস রোগীর সংখ্যা দিন দিন পরিবর্তিত হচ্ছে। বিশ্বে মৃত্যুর শীর্ষ পাঁচটি কারণের মধ্যে ডায়াবেটিস অন্যতম।

প্রতি 10 সেকেন্ডে একজন ডায়াবেটিক মারা যায় এবং দুইজন ডায়াবেটিক রোগীকে প্রতি 10 সেকেন্ডে চেষ্টা করতে হয়। তবে সঠিক নিয়ম মেনে এ রোগ নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব।

ডায়াবেটিস রোগীদের খাবার সম্পর্কে কিছু মিথ বা ভুল ধারণা-

ডায়াবেটিস রোগীদের খাবার সম্পর্কে কিছু ভুল ধারণা

সব ধরনের মিষ্টি খাবার বাদ দিতে হবে

না, আপনি সবসময় আপনার প্রিয় চিনি সমৃদ্ধ খাবার খেতে পারেন তবে পরিমিত এবং বোঝার সাথে। উদাহরণস্বরূপ, আপনি যতটা চান মিষ্টি বা কাস্টার খেতে পারবেন না। আপনি নিজেই এটি করতে পারেন, তবে আপনাকে এখানে স্বাস্থ্য তালিকায় কারা রয়েছে তা খুঁজে বের করতে হবে।

আপনাকে চিনিযুক্ত খাবার বাদ দিতে হবে

আপনি কোন শর্করা খাচ্ছেন সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। বার্লি, বাদামী বা লাল চাল, গম বা গমের দানা জাতীয় রুটি, চাল বা চাল, পাস্তা, ওটস ইত্যাদির প্রধান খাবারের মতো স্টার্চ জাতীয় খাবার মনে রাখার পরিবর্তে। কারণ রক্তে শর্করা নিয়ন্ত্রণে শস্যদানা একটি প্রধান অবদানকারী।

আমার বিশেষ ডায়াবেটিক খাবার খেতে হবে

মানসিক স্বাস্থ্যের মন্ত্রটি প্রত্যেকের জন্য প্রযোজ্য, আপনি ডায়াবেটিক বা নিউমোনিকই হোন না কেন, ব্যয়বহুল এবং সস্তা ডায়াবেটিক খাবার (কথিত) খুব ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণে ভূমিকা পালন করে।

বেশি প্রোটিন খাবার ভালো

গবেষণায় দেখা গেছে যে অতিরিক্ত জাতীয় প্রোটিন খাবার, বিশেষ করে প্রাণীজ প্রোটিন ইনলাইন রেজিস্ট্যান্স, গ্লুকোজ-নিয়ন্ত্রক হরমোনের কর্মক্ষমতা হ্রাস করে। মোদ্দা কথা হলো- শর্করা, আম, চর্বিজাতীয় খাবার তার খাদ্যের প্রধান অবলম্বন।

বিশেষ – প্রাকৃতিকভাবে তৈরি খাবার বা প্রক্রিয়াবিহীন খাবার বা প্রক্রিয়াবিহীন খাবার এবং প্যাক না করা খাবার ডায়াবেটিস-বান্ধব।

আরও পড়ুন: প্রতিদিনের সুষম খাদ্য তালিকা

আপনার যদি ডায়াবেটিস থাকে তবে আপনি কি বেশি খাবার খান?

প্রযুক্তি চর্বি যেমন সুজি, বাদাম, অলিভ অয়েল, মাছের তেল ইত্যাদির জুস থেকে বেশি করে ফল খেতে হবে। দেশি মাছও মুরগি। ভালো প্রোটিন খাবার- মণি, ডিম, কম চর্বিযুক্ত দুধ, টক দই ইত্যাদি।

ডায়াবেটিস হলে কি খাবার কম খান?

গভীর ভাজা বা অতিরিক্ত রান্না করা খাবার প্যাকেজ করা ফাস্ট ফুড, বিশেষ করে যেগুলোতে চিনি, বেকিং কাবার, মিষ্টি, জাত, চিপস ইত্যাদি থাকে। সাদা রুটি, চিনিযুক্ত চম্পা,

উচ্চ ফাইবারযুক্ত খাবারগুলিও ধীরে ধীরে মুক্তির কার্বোহাইড্রেট

আমাদের শরীরে কার্বোহাইড্রেটের একটি শক্তিশালী ভূমিকা রয়েছে, এটি সক্রিয় ওজন নিয়ন্ত্রণ করে, এমনকি এর ভূমিকা চর্বি বা প্রোটিনের চেয়েও বেশি। তাই জাতীয় খাবার খেতে কী ধরনের শর্করার কথা মনে রাখতে হবে।

প্রক্রিয়াজাত শারা, যেমন সাদা রুটি, চিনিযুক্ত রিয়েলটি, প্রক্রিয়াজাত পাভ বাস রাইস সোডা, খাবর, প্যাকেজ করা খাবার যাতে চিনি থাকে তাদের একটি বিশেষ বৈশিষ্ট্য থাকা উচিত যাতে ধীরে ধীরে মুক্তির কার্বোহাইড্রেট এবং উচ্চ ফাইবারযুক্ত খাবারগুলি ভাল স্বাস্থ্যের জন্য উচ্চ মানের সামরিক রক্তের সাথে মিশ্রিত হয়। ইনসুলিন নিঃসরণে সাহায্য করে।

ডায়াবেটিস রোগীর খাদ্য তালিকা ও খাদ্য তালিকা

ডায়াবেটিস রোগীর খাদ্য তালিকা ও খাদ্য তালিকা

আমাদের অনেকেরই ডায়াবেটিক ডায়েট আছে। তাদের জীবন এবং পাপের নিয়ম মেনে চলতে নির্দেশ দেয়। খাবার নিয়ে অনেকেরই ভুল ধারণা রয়েছে।

আজ আমরা ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য আদর্শ খাদ্য তালিকা এবং খাদ্য তালিকা সম্পর্কে আলোচনা করব।

ডায়াবেটিস হল মনের একটি রোগ যা আমাদের খাদ্যাভ্যাসের উপর অত্যন্ত নির্ভরশীল। বলা হয় যে ডায়াবেটিস আক্রান্ত ব্যক্তির হৃদরোগ, মানসিক অসুস্থতা এবং বিষণ্নতা হওয়ার ঝুঁকি প্রায় দ্বিগুণ।

কিন্তু অনেক ক্ষেত্রে টাইপ-২ ডায়াবেটিস (সুতরাং ইনসু লিন্না) শুধুমাত্র নিয়ন্ত্রণে থাকে এবং কিছু ক্ষেত্রে নিরাময়যোগ্য। ডায়াবেটিস প্রতিরোধে – যেমন খাবারের বাইরে নিজেকে খুঁজে বের করা বা মজাদার খাবার নিয়ে আলোচনা না করা, সবই বলা যেতে পারে, তবে পরিমিতভাবে দেখা হবে, মেজাজ এবং শক্তির মুখে আপনার সমাধান হবে।

ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য চিনিযুক্ত খাবার ক্ষতিকর। এটি রক্তের গ্লুকোজ কমায়, তাই খাদ্যতালিকায় চিনিযুক্ত খাবার কমানো জরুরি। কিছু চিনিযুক্ত খাবার রক্তে গ্লুকোজ প্লাক বাড়ায়, যেমন চৈতা চাটা, খাবর, বেশি ভাত, কম রুটি, কম হবে।

আরও পড়ুন: ডায়াবেটিস রোগীরা কতক্ষণ হাঁটতে পারে (এনটিভি)

লাল চাল (তুষ দিয়ে), গমের আটার রুটি (তুষ দিয়ে), শাকসবজি, বাদাম, বুট এবং ডাল রক্তের গ্লুকোজ চেম্বার বাড়ায় তাই এই খাবারটি সবচেয়ে বেশি প্রয়োজন। তবে ক্যালরির পরিমাণ অবশ্যই রাখতে হবে।

ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য, মোট ক্যালোরির 20% I থেকে, 30% চর্বি থেকে এবং 50% অনেক শর্করা থেকে। এখানে ডায়াবেটিস রোগীর জন্য 1600 kcal প্রয়োজনের একটি নমুনা ডায়েট চার্ট দেওয়া হল।

পাসপোর্টের ডায়েট রোগীর ডায়েট চাট খাবারের তালিকায় খুব বেশি কিছু করার নেই।

ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য সকালের নাস্তা

ডায়াবেটিস রোগীদের জন্য সকালের নাস্তা

সকালের নাস্তায় ফল খুবই গুরুত্বপূর্ণ। ফল হল শরীরে ক্যালোরি razuaman.comË

Leave a Reply

Your email address will not be published.